০১:২২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

চোখের পাতা ঘন করার উপায় জেনে নিন

কাজল কালো চোখ দেখে মুগ্ধ হন সবাই। তা বাঙালি মেয়েরা বেশ ভালো করেই জানেন। তাই তো চোখের মেকআপেও বেশ গুরুত্ব দেন তাঁরা। মুখের অন্যান্য অংশে মেকআপ না করলেও, চোখে সামান্য কাজল লাগাতে ভোলেন না এতটুকু। তাই তো চোখের সাজে মাস্কারা মাস্ট। এর মাধ্যমে চোখের পাতা ঘন দেখাতে পারেন। আইল্যাশ বা চোখের পাতার বিশেষ যত্ন নিতে পারলে, মাস্কারা লাগিয়ে তা কার্ল করার প্রয়োজন পড়বে না। প্রাকৃতিক উপায়ে শুধু চোখের পাতার যত্ন নিলেই চলবে। আর এটি আপনি করতে পারবেন বাড়িতেই। জেনে নিন বাড়িতেই কীভাবে চোখের পাতার যত্ন নিতে হবে।

ঘুমাতে যাওয়ার আগে লাগান ক্যাস্টর অয়েল
ক্যাস্টর অয়েলে আছে প্রচুর পরিমাণে রিসিনোলিক এসিড, যা চুল পড়া বন্ধ করে। চোখের পাতা ঘন করতেও এই উপাদান কিন্তু সাহায্য করতে পারে। তবে ক্যাস্টর অয়েল ব্যবহারে চুল অতিরিক্ত রুক্ষ-শুষ্ক হয়ে উঠতে পারে। তাই চোখের পাতায় ক্যাস্টর অয়েল ব্যবহারের আগে অবশ্যয়ই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে পারেন। প্রথমে চোখের পাতা ভালো করে পানি দিয়ে পরিষ্কার করে নিন। এবার কটন বাডস কোল্ড প্রেসড ক্যাস্টর অয়েলে ভিজিয়ে নিন। তারপর ভালো করে চোখের উপরের ও নিচের পাতায় লাগিয়ে নিন। এই কাজটি করবেন ঘুমাতে যাওয়ার ঠিক আগে। পরের দিন সকালে উঠে চোখ পরিষ্কার করে নিন।

অতিরিক্ত নারকেল তেল ব্যবহারে ক্ষতি হতে পারে
নারকেল তেল চুলের যত্নে ব্যবহার করা হয়। চুলের প্রোটিন রক্ষা করার জন্য এই তেলের ভূমিকা অনেকে। তবে নারকেল তেল ব্যবহারের সময় অবশ্যই সতর্ক থাকতে হবে। অতিরিক্ত তেলের ব্যবহারে ক্ষতিও হতে পারে। ক্যাস্টর অয়েল যেভাবে ব্যবহার করেছিলেন, নারকেল তেলও একইভাবে ব্যবহার করতে হবে।

চুল ও ত্বকের জন্য ভালো ভিটামিন ই
ভিটামিন ই-তে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি অক্সিড্য়ান্ট রয়েছে, যা চুল ও ত্বকের জন্য বেশ ভালো। তাই ঘন আইল্যাশ পাওয়ার জন্যে এই ভিটামিন এক্সট্র্যাক্ট ব্যবহার করতে পারেন। ভিটামিন ই এক্সট্র্যাক্ট পরিমাণ মতো আঙুলে নিয়ে আইল্যাশে লাগাতে হবে। ওরাল সাপ্লিমেন্ট হিসেবেও গ্রহণ করা যায় এই ভিটামিন। তবে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

চোখের পাতায় লাগিয়ে নিন গ্রিন টি
গ্রিন টি-তে আছে প্রচুর পরিমাণে পলিফেনল। চুল বৃদ্ধিতে সাহায্য করতে পারে এই উপাদান। চোখের পাতা ঘন করতেও সাহায্য করতে পারে গ্রিন টি’র। তার জন্য আপনার লাগবে একটি গ্রিন টি ব্যাগ। এক কাপ গরম পানিতে গ্রিন টি বানিয়ে নিন। চাইলে এই পানীয় আপনি গরম গরম পান করতে পারেন। নাহলে ঠাণ্ডা গ্রিন টি কটন বাডের সাহায্যে চোখের পাতায় লাগাতে পারেন। দুভাবেই মিলবে উপকার। খুব ভালো হয় যদি দিনে দুবার গ্রিন টি পান করেন। আর একবার চোখের পাতায় এটি লাগিয়ে নিন।

চুলের বৃদ্ধিতে অলিভ অয়েল
অলিভ অয়েলে চুলের বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। তাই ঘন চোখের পাতার জন্যেও এই উপাদান সহজেই ব্যবহার করতে পারেন। একটি কটন বাডে এক-দুই ফোটা অলিভ অয়েল নিয়ে চোখের উপরের ও নিচের পাতায় ভালো করে লাগিয়ে নিন। এবার হালকা গরম পানি দিয়ে ভালো করে পরিষ্কার করে ফেলুন। চোখের কোনও চিকিৎসা চললে চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া কোনও উপাদান ব্যবহার করবেন না।

ট্যাগ:

চোখের পাতা ঘন করার উপায় জেনে নিন

প্রকাশ: ০৭:০৩:১৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

কাজল কালো চোখ দেখে মুগ্ধ হন সবাই। তা বাঙালি মেয়েরা বেশ ভালো করেই জানেন। তাই তো চোখের মেকআপেও বেশ গুরুত্ব দেন তাঁরা। মুখের অন্যান্য অংশে মেকআপ না করলেও, চোখে সামান্য কাজল লাগাতে ভোলেন না এতটুকু। তাই তো চোখের সাজে মাস্কারা মাস্ট। এর মাধ্যমে চোখের পাতা ঘন দেখাতে পারেন। আইল্যাশ বা চোখের পাতার বিশেষ যত্ন নিতে পারলে, মাস্কারা লাগিয়ে তা কার্ল করার প্রয়োজন পড়বে না। প্রাকৃতিক উপায়ে শুধু চোখের পাতার যত্ন নিলেই চলবে। আর এটি আপনি করতে পারবেন বাড়িতেই। জেনে নিন বাড়িতেই কীভাবে চোখের পাতার যত্ন নিতে হবে।

ঘুমাতে যাওয়ার আগে লাগান ক্যাস্টর অয়েল
ক্যাস্টর অয়েলে আছে প্রচুর পরিমাণে রিসিনোলিক এসিড, যা চুল পড়া বন্ধ করে। চোখের পাতা ঘন করতেও এই উপাদান কিন্তু সাহায্য করতে পারে। তবে ক্যাস্টর অয়েল ব্যবহারে চুল অতিরিক্ত রুক্ষ-শুষ্ক হয়ে উঠতে পারে। তাই চোখের পাতায় ক্যাস্টর অয়েল ব্যবহারের আগে অবশ্যয়ই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে পারেন। প্রথমে চোখের পাতা ভালো করে পানি দিয়ে পরিষ্কার করে নিন। এবার কটন বাডস কোল্ড প্রেসড ক্যাস্টর অয়েলে ভিজিয়ে নিন। তারপর ভালো করে চোখের উপরের ও নিচের পাতায় লাগিয়ে নিন। এই কাজটি করবেন ঘুমাতে যাওয়ার ঠিক আগে। পরের দিন সকালে উঠে চোখ পরিষ্কার করে নিন।

অতিরিক্ত নারকেল তেল ব্যবহারে ক্ষতি হতে পারে
নারকেল তেল চুলের যত্নে ব্যবহার করা হয়। চুলের প্রোটিন রক্ষা করার জন্য এই তেলের ভূমিকা অনেকে। তবে নারকেল তেল ব্যবহারের সময় অবশ্যই সতর্ক থাকতে হবে। অতিরিক্ত তেলের ব্যবহারে ক্ষতিও হতে পারে। ক্যাস্টর অয়েল যেভাবে ব্যবহার করেছিলেন, নারকেল তেলও একইভাবে ব্যবহার করতে হবে।

চুল ও ত্বকের জন্য ভালো ভিটামিন ই
ভিটামিন ই-তে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি অক্সিড্য়ান্ট রয়েছে, যা চুল ও ত্বকের জন্য বেশ ভালো। তাই ঘন আইল্যাশ পাওয়ার জন্যে এই ভিটামিন এক্সট্র্যাক্ট ব্যবহার করতে পারেন। ভিটামিন ই এক্সট্র্যাক্ট পরিমাণ মতো আঙুলে নিয়ে আইল্যাশে লাগাতে হবে। ওরাল সাপ্লিমেন্ট হিসেবেও গ্রহণ করা যায় এই ভিটামিন। তবে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

চোখের পাতায় লাগিয়ে নিন গ্রিন টি
গ্রিন টি-তে আছে প্রচুর পরিমাণে পলিফেনল। চুল বৃদ্ধিতে সাহায্য করতে পারে এই উপাদান। চোখের পাতা ঘন করতেও সাহায্য করতে পারে গ্রিন টি’র। তার জন্য আপনার লাগবে একটি গ্রিন টি ব্যাগ। এক কাপ গরম পানিতে গ্রিন টি বানিয়ে নিন। চাইলে এই পানীয় আপনি গরম গরম পান করতে পারেন। নাহলে ঠাণ্ডা গ্রিন টি কটন বাডের সাহায্যে চোখের পাতায় লাগাতে পারেন। দুভাবেই মিলবে উপকার। খুব ভালো হয় যদি দিনে দুবার গ্রিন টি পান করেন। আর একবার চোখের পাতায় এটি লাগিয়ে নিন।

চুলের বৃদ্ধিতে অলিভ অয়েল
অলিভ অয়েলে চুলের বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। তাই ঘন চোখের পাতার জন্যেও এই উপাদান সহজেই ব্যবহার করতে পারেন। একটি কটন বাডে এক-দুই ফোটা অলিভ অয়েল নিয়ে চোখের উপরের ও নিচের পাতায় ভালো করে লাগিয়ে নিন। এবার হালকা গরম পানি দিয়ে ভালো করে পরিষ্কার করে ফেলুন। চোখের কোনও চিকিৎসা চললে চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া কোনও উপাদান ব্যবহার করবেন না।