০২:৩০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কারাগারে গেলে নজরুলকে স্মরণ করি: রিজভী

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, আমরা আগেও বলেছি, এখনো বলছি – আমরা যখন কারাগারে যাই, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামকে স্মরণ করি। আমাদের যখন কোনো সাজা হয়, তখন আমরা নজরুলকে স্মরণ করি। কেননা অপরাধের জন্য আমাদের সাজা দেওয়া হয় না। গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করছি বলে আমাদের সাজা দিচ্ছে, আমাদের কারাগারে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

শনিবার (২৫ মে) জাতীয় কবির জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কাজী নজরুল ইসলামের মাজারে বিএনপির পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা নিবেদন ও ফাতিহা পাঠ শেষে এ কথা বলেন রিজভী।

বিএনপির এই নেতা বলেন, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের মানবতার গান, স্বাধীনতার গান, বিপ্লবের গান শিখিয়েছেন। তা এখনো আমাদের প্রাণিত করে। আমরা আজও গণতন্ত্রহারা, স্বাধীনতাহারা এক ভয়ংকর স্বৈরতন্ত্রের মধ্যে রুদ্ধশ্বাস অবস্থায় আছি। এই পরিস্থিতির প্রতিটি ক্ষণ, প্রতিটি মুহূর্ত নজরুল আমাদের উদ্বুদ্ধ করছে।

রুহুল কবির রিজভী বলেন, জাতীয় কবি প্রতিবাদের ভাষায় যে শৈল্পিক নৈপুণ্য দিয়ে গেছেন, সেই ভাষাই আমরা রপ্ত করে গণতন্ত্র ফেরানো, স্বাধীনতা ফেরানো, সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিশ্চিত করার লড়াই অব্যাহত রেখেছি। উপমহাদেশে প্রথম স্বাধীনতার মন্ত্র তার কণ্ঠ থেকে উচ্চারিত হয়েছিল। হয়েছিল বলেই তাকে কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়।

তিনি আরও বলেন, প্রতি ক্ষণে নজরুলের গান, শিল্প-সাহিত্য, তার সৃষ্টি আমাদের উদ্বুদ্ধ করছে বিদ্যমান পরিস্থিতিতে প্রতিবাদ করতে, নিপীড়ন-নির্যাতন ভোগ করে এগিয়ে যেতে। নজরুল সবসময় আমাদের জীবনে প্রাসঙ্গিক। তার দেখানো পথ ধরেই দেশে গণতন্ত্র, কথা বলার স্বাধীনতা- সবকিছুই আমরা নিশ্চিত করতে পারবো। এ ক্ষেত্রে নজরুল এক প্রবল অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করবে।

ট্যাগ:

কারাগারে গেলে নজরুলকে স্মরণ করি: রিজভী

প্রকাশ: ১২:৩৬:২৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, আমরা আগেও বলেছি, এখনো বলছি – আমরা যখন কারাগারে যাই, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামকে স্মরণ করি। আমাদের যখন কোনো সাজা হয়, তখন আমরা নজরুলকে স্মরণ করি। কেননা অপরাধের জন্য আমাদের সাজা দেওয়া হয় না। গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করছি বলে আমাদের সাজা দিচ্ছে, আমাদের কারাগারে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

শনিবার (২৫ মে) জাতীয় কবির জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কাজী নজরুল ইসলামের মাজারে বিএনপির পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা নিবেদন ও ফাতিহা পাঠ শেষে এ কথা বলেন রিজভী।

বিএনপির এই নেতা বলেন, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের মানবতার গান, স্বাধীনতার গান, বিপ্লবের গান শিখিয়েছেন। তা এখনো আমাদের প্রাণিত করে। আমরা আজও গণতন্ত্রহারা, স্বাধীনতাহারা এক ভয়ংকর স্বৈরতন্ত্রের মধ্যে রুদ্ধশ্বাস অবস্থায় আছি। এই পরিস্থিতির প্রতিটি ক্ষণ, প্রতিটি মুহূর্ত নজরুল আমাদের উদ্বুদ্ধ করছে।

রুহুল কবির রিজভী বলেন, জাতীয় কবি প্রতিবাদের ভাষায় যে শৈল্পিক নৈপুণ্য দিয়ে গেছেন, সেই ভাষাই আমরা রপ্ত করে গণতন্ত্র ফেরানো, স্বাধীনতা ফেরানো, সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিশ্চিত করার লড়াই অব্যাহত রেখেছি। উপমহাদেশে প্রথম স্বাধীনতার মন্ত্র তার কণ্ঠ থেকে উচ্চারিত হয়েছিল। হয়েছিল বলেই তাকে কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়।

তিনি আরও বলেন, প্রতি ক্ষণে নজরুলের গান, শিল্প-সাহিত্য, তার সৃষ্টি আমাদের উদ্বুদ্ধ করছে বিদ্যমান পরিস্থিতিতে প্রতিবাদ করতে, নিপীড়ন-নির্যাতন ভোগ করে এগিয়ে যেতে। নজরুল সবসময় আমাদের জীবনে প্রাসঙ্গিক। তার দেখানো পথ ধরেই দেশে গণতন্ত্র, কথা বলার স্বাধীনতা- সবকিছুই আমরা নিশ্চিত করতে পারবো। এ ক্ষেত্রে নজরুল এক প্রবল অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করবে।